004

শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপের প্রাইজমানি বাড়ছে

শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ ফুটবলের দ্বিতীয় আসর আরো জমজমাট করার ঘোষণা দিয়েছে চট্টগ্রাম আবাহনী লিমিটেড। প্রথম আসরের সব ক‘টি দলই ছিল দক্ষিণ এশিয়ার। এবার ক্লাব আনা হচ্ছে দক্ষিণ এশিয়ার বাইরে থেকেও। বিশেষ করে দক্ষিণ কোরিয়ার একটি দলই হবে এবারের আসরের চমক। বাড়ছে প্রাইজমানিও। আগামী ১৮ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে শুরু হবে এ টুর্নামেন্ট। টুর্নামেন্ট শুরুর ঠিক এক মাস বুধবার সংবাদ সম্মেলন করে সম্ভাব্য দল ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন চট্টগ্রাম আবাহনীর মহাসচিব শামসুল হক চৌধুরী এবং ক্লাবটির ফুটবল কমিটির চেয়ারম্যান তরফদার মো. রুহুল আমিন। প্রথম শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্লাব কাপ ফুটবলে চ্যাম্পিয়ন দলকে প্রাইজমানি দেয়া হয়েছিল ২৫ হাজার মার্কিন ডলার। এবার দেয়া হবে ৩০ হাজার মার্কিন ডলার। রানার্সআপ দল পাবে ১৫ হাজার মার্কিন ডলার। টুর্নামেন্টে ১০ কোটি টাকার বেশি খরচ হবে বলে জানিয়েছেন আয়োজক চট্টগ্রাম আবাহনীর কর্মকর্তারা। দ্বিতীয় আসর বসবে ৮ দল  নিয়ে। বর্তমান চ্যাম্পিয়ন ও আয়োজক চট্টগ্রাম আবাহনী এবং দেশের দুই জনপ্রিয় ক্লাব মোহামেডান ও আবাহনীর সঙ্গে অংশ নেবে ৫ বিদেশি ক্লাব। বিদেশি তিনটি দল নিশ্চিত হয়েছে। অপেক্ষায় আরও দুইটির জন্য। নেপালের মানাং মারসিয়াংদি ক্লাব, দক্ষিণ কোরিয়ার চ্যালেঞ্জ কাপ চ্যাম্পিয়ন দল পোচিয়ন সিটিজেন ফুটবল ক্লাব, আফগানিস্তানের শাহীন আসমায়ী ফুটবল ক্লাব টুর্নামেন্টে খেলবে বলে জানানো হয়েছে সংবাদ সম্মেলনে। প্রথম আসরে ভারতের মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব ও ইস্টবেঙ্গল খেলেছিল। এবার দেশটির কোনো ক্লাব থাকছে না। ঘরোয়া ফুটবলের ব্যস্ততার কারণে আসতে পারছে না দক্ষিণ এশিয়ার সবচেয়ে বড় দেশটির কোনো ক্লাব। বাকি দুই ক্লাবের মধ্যে কম্বোডিয়ার একটি নিশ্চিত প্রায়। আরেকটি হতে পারে মালদ্বীপ অথবা শ্রীলংকার। টুর্নামেন্টে ৫ জন বিদেশি ফুটবলার রেজিষ্ট্রেশন করা যাবে। এক ম্যাচে খেলতে পারবেন ৪ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *